রেনেসাঁসের কারনগুলো আলোচনা করো ?

  রেনেসাঁসের কারণ:

রেনেসাঁস বা নবজাগরণ কোনো আকস্মিক কারণে সংঘটিত হয়নি ।এর পেছনে ছিল বহুবিধ কারণ এবং বহুদিনের প্রস্তুতির ফসল ।  নিচে রেনেসাঁসের কারণ সমূহ আলোচনা করা হলো:-

১) আরবীয় সভ্যতা ও সংস্কৃতির প্রভাব :

হযরত মুহাম্মদ(স:) এর আর্বিভাবের মধ্য দিয়ে সুদীর্ঘকাল ধরে অন্ধকারে নিমজ্জিত আরব জাতি জেগে উঠে ।ইসলামের সাম্য মৈত্রী স্বাধীনতা নেতৃত্ব সাধনা মানবতাবোধ, ধৈর্য ,ও সাহস কে কেন্দ্র করে অল্প সময়ের মধ্যে আরবরা চারদিকে ছড়িয়ে পড়ে ।আরবরা পশ্চিম এশিয়া, মধ্য এশিয়া, ভারতবর্ষে উত্তর আফ্রিকা, এবং ইউরোপের স্পেন অধিকার করে নেয় ।এ বিজয়ের পাশাপাশি জ্ঞান বিজ্ঞানের জগতে আরবদের অসামান্য সাফল্য সারা বিশ্বকে অবাক করে দেয় ।বিশেষ করে সাহিত্য, গণিত, যুক্তিবিদ্যা ,দর্শন, ধর্মতত্ত্ব, চিকিৎসা বিজ্ঞানের মৌলিক শাখার আরবদের অবদান অবিস্মরণীয় ।একাদশ শতাব্দী থেকে এয়োদশ শতক পর্যন্ত ইউরোপ ও এশিয়ার মধ্যে (খ্রিষ্টান ও মুসলমানদের মধ্যে) দীর্ঘস্থায়ী কুসেড বা ধর্মযুদ্ধ অভিযান সংঘটিত হয় ।ফলে ইউরোপীয়রা আরবীয় সভ্যতা ও সংস্কৃতির সংস্পর্শে আসে ,এবং তা ইউরোপীয়দের জাগ্রত করতে ব্যাপকভাবে সাহায্য করে। যা পরবর্তীতে ইউরোপের রেনেসাঁ সৃষ্টিতে ইতিবাচক ভূমিকা পালন করে।

 ২)কুসেডের প্রভাব:

ধর্ম বিষয়ে যাজক সম্প্রদায় নীতিজ্ঞানহীনতার পরিচয় দিলেও গির্জায় গির্জায় তারা জ্ঞানের আলোকবর্তিকা জ্বালিয়ে রেখেছিল। একাদশ থেকে ত্রয়োদশ শতাব্দী পর্যন্ত ইউরোপ ও এশিয়ার মধ্যে ধর্মযুদ্ধের ফলে এই জ্ঞান আরো বৃদ্ধি পেয়েছিল ।জেরুজালেম ছিল তখন তুরস্ক রাজ্যভুক্ত।তুরষ্কের অধিকার হতে যিশুখ্রিস্টের পবিত্র সমাধি স্থান জেরুজালেমের উদ্ধার করার মানসে  ধর্মযুদ্ধ সৃষ্টি হয় ।ধর্মযুদ্ধের যোগদানের উৎসাহ ইউরোপকে মধ্যযুগের তন্দ্রা হতে জাগ্রত করে তুলেছে ।এক নবচেতনা অদম্য উৎসাহ জেগে উঠে তারা ।ধর্মের নামে যে উৎসাহ-উদ্দীপনার সৃষ্টি হয়েছিল তা ইউরোপকে রেনেসাঁসের দিকে ধাবিত করেছে ।

৩) নতুন সাহিত্যের বিকাশ:

পঞ্চদশ শতকে ইউরোপে রেনেসাঁ সৃষ্টিতে নতুন সাহিত্যের বিকাশ এক বিশেষ ভূমিকা পালন করে ।নব প্রেরণা সৃষ্টিতে ফরাসি দেশের চারণ কবিগন বিরাট ভূমিকা পালন করে ।তারা রাজা আর্থার, শার্লামেন ,হোলি-গেল প্রমুখদের উপর চারণগীতি রচনা করে সাধারন মানুষদের মাঝে প্রচলন করেন। স্পেনের চারণ কবিরা এক ধরনের লোকজ ঐতিহ্যশ্রয়ী কবিতা রচনা করেন ।যাকে বলা হয় সিড(Cid)।স্পেনের ভাষার সাহিত্য সৃষ্টির প্রথম পদক্ষেপ ছিল সিড ।ইতালির কবি দান্তে রচিত ডিভাইন এন্ড কমেডি গ্রন্থ ইতালির কখ্য ভাষাকে সাহিত্য রচনা ভাষা হিসেবে প্রতিষ্ঠা করেন ।জার্মানিতে নিবেলুন্জেনলিড নামে কাব্যগ্রন্থ ও মিনেসিঙ্গ নামে চারণগন জার্মান ভাষা সাহিত্যের পথপ্রদর্শক স্বরূপ ।ইংল্যান্ডের চ্যসার তার ক্যান্টারবেরি- টেলস গ্রন্থে রোমান স্যাকসন ভাষার এক অপূর্ব সমন্বয় ঘটিয়ে আধুনিক ইংরেজি ভাষার রূপ প্রদান করেন ।এভাবে ভাষা ও সাহিত্যের বিকাশ ইউরোপের রেনেসাঁস কে নতুন গতি দান করে। 

৪) জীবন ও জগতের প্রতি নতুন দৃষ্টিভঙ্গি:

ইউরোপীয় রেনেসাঁসের অন্যতম প্রধান কারণ হলো ইউরোপের মানুষের জীবন ও জগতের প্রতি নতুন দৃষ্টিভঙ্গি ।মধ্যযুগে ইউরোপে ধর্মীয় শাসন ও শোষণের ফলে মানুষের চিন্তা-চেতনা ক্ষেত্রে কোন প্রকার স্বাধীনতা ছিল না। চতুর্দশ শতাব্দীতে থেকে আর্থ সামাজিক কাঠামো দুর্বল হয়ে পড়ে, এতে পবিত্র রোমান সাম্রাজ্য ভেঙে পড়তে শুরু করে। এসময় থেকে পোপতন্ত্রের প্রভাব ও ধর্মীয় অনুশাসন সমাজজীবন থেকে দুর্বল হয়ে পড়তে থাকে ।এই পরিস্থিতির প্রেক্ষাপটে জীবন ও জগতের প্রতি মানুষের দৃষ্টিভঙ্গির আমূল পরিবর্তন হতে থাকে। অজানাকে জানার জন্য, অজানাকে চেনার জন্য, এবং অদেখাকে দেখার জন্য মানুষের মধ্যে প্রবল আগ্রহ জাগ্রত হয়। মানুষ যুক্তি ও বুদ্ধি দিয়ে দেশ ও সমাজকে বিচার করতে শুরু করে ।যায় কারণে ইউরোপের নবজাগরণের ইতিবাচক ভূমিকা পালন করে ।

৫)ইতালির শহর গুলোর অবদান:

ইতালি তথা ইউরোপের রেনেসাঁ সৃষ্টিতে ইতালির শহর গুলোর অবদান অপরিসীম।ইতালির দক্ষিনে ভূমধ্যসাগরীয় অঞ্চলে এ শহর গড়ে উঠেছিল ।এ শহর অর্থনীতি-বাণিজ্য গড়ে উঠেছে। বাণিজ্যের প্রয়োজনে এ শহর গুলোতে গড়ে ওঠে ছোট ছোট কারখানা। ইউরোপের সামন্তবাদী আর্থসামাজিক কাঠামোর প্রভাবের শহরগুলোতে খুবই কম ছিল ।ফলে শহরগুলোতে স্বাধীন চিন্তা-চেতনা ,ব্যক্তিত্বের বিকাশ ,এবং নাগরিকদের আদর্শের চাবিকাঠি সৃষ্টির অনুকূল পরিবেশ বিরাজ করেছিল। উপরন্তু মানুষের আত্মনির্ভরশীলতা হওয়ার মতো সুযোগ এখানে ছিল ।এতে স্বাভাবিক ভাবে মানুষের মন-মানসিকতা ,উদার নৈতিক ভাবনা, ধর্ম নিরপেক্ষ দৃষ্টিভঙ্গি ,সাহিত্য, শিল্পকলার ,প্রতি গভীর আকর্ষণ সৃষ্টি হয়েছিল। বস্তুত জেনোয়া,ফ্লোরেন্স,ভেনিস প্রভৃতি শহর ইউরোপের রেনেসাঁ সৃষ্টিতে কার্যকর ভূমিকা রেখেছিল ।ফ্লোরেন্স শহরটিকে দ্বিতীয় এথেন্স আখ্যা দেওয়া হয়েছিল ।

এছাড়াও ইউরোপে রেনেসাঁ সৃষ্টিতে মানবতাবাদী পণ্ডিতদের অবদান রয়েছিল ।

Post Author: showrob

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

− 1 = 2